ইউজার লগইন

হ য ব র ল - ৫

১.
গত ৫দিন যাবৎ বিশাল দৌড়ের উপরে আছি। টার্ম পেপার, প্রেজেন্টেশন, টার্ম ফাইনাল, বৈশাখ, ঋহান, ঋহানের বাপ, সব নিয়া পুরা বেরাচেরা অবস্থা। তবুও মাঝে সাঝে ব্লগে এসে অফলাইনে দুই একটা লেখা পড়েছিলাম, কিন্তু কমেন্ট করা হয়নি। আজ যখন সব কমেন্ট করতে বসলাম, দেখি একটু পর পর বিদ্যুৎ মামা বেড়াইতে চইলা যান। এমন তো কথা ছিলো না।

২.
কথা ছিলো বুধবার আমার জামাই অফিস শেষে আমারে মটর সাইকেলে করে বসুন্ধরা পৌছায়া দিয়ে যাবে, আবার ক্লাস শেষে নিয়েও যাবে। কিন্তু স্যার আমাকে লোভ দেখালেন এই বলে যে, “দেখো তুমি যদি একাই চলে যেতে পারো তাহলে আমি ঠিক ৫টায় অফিস শেষ করেই ঋহানের কাছে চলে যেতে পারি। তাহলে বাবুটা এত লম্বা সময় একা থাকলো না”। আর আপনারা তো সবাই জানেন, নারী জাতি সবসময়ই লোভী। তাই, আমিও লোভ সামলাতে না পেরে তার কথায় রাজী হয়ে গেলাম। যদিও সেদিন বাসায় ফিরে জানতে পেরেছিলাম উনি বাসায় গিয়েছিলেন রাত ৮টার একটু আগে। সে যাইহোক, উনি কথা রাখবেন কি রাখবেন না সেটা উনার ব্যাপার। এদিকে আমি তার কথার লোভে পরে রওয়ানা হলাম বসুন্ধরার উদ্দেশ্যে। বড় রাস্তায় গিয়ে একটাও সি.এন.জি নেই। তাই বাধ্য হয়ে একটা বাসে চড়ে বসলাম। এই বাসে আগে বেশ কয়েকবার বসুন্ধরা গিয়েছি, কিন্তু ঋহান আসবে এটা জানার পর থেকে সেদিন অবধি আর বাসে চরা হয়নি। তো বাসে উঠার পর শুনলাম বাস তার শেষ গন্তব্যস্থল বদলে দিয়েছে। এখন তারা আর বসুন্ধরা যায় না, নতুন বাজারই তাদের শেষ গন্তব্য। এটা শুনে এম্নিতেই মেজাজ খারাপ তার মাঝে আরো মেজাজ খারাপ করতে এক বেটা বাসে উঠলো। সে উঠেই সামনে দাঁড়ানো সবাইকে ঠেলে মহিলা সিটের দিকে আসা শুরু করলো। আমি তখন বসার জায়গা না পেয়ে মহিলা সিট গুলোর পাশে দাঁড়িয়ে আছি। এদিকে লক্ষ্য করছি, সেই বেটা চোখে মুখে খুব বিরক্তি নিয়ে অন্যদের ঠেলে ঠুলে এগুচ্ছে আর বলছে “সবাই সামনে দাড়ায়ে থাকতে চায়, কেউ পিছে যায় না”। মানুষ পিছনে যেতে চায় না বলে উনি নিজেই আমার ঠিক পিছনে এসে দাঁড়ালেন। কারন, শত চেষ্টা করেও উনি আর পিছনে যেতেই পারছেন না, এই ভাব দেখিয়ে ঠিক সেখানেই দাঁড়িয়ে পরলেন। তারপরের কাহিনী তো আর কারো কাছেই নতুন কিছু না। তবে আমি বুঝিনা, এইসব মানুষেরা এমন করে কি আনন্দ’টা পায়? তাদের এত নিম্ন মানের আনন্দ পেতে দেখে মানুষ হিসেবে নিজের উপর খুব লজ্জা লাগে। যাইহোক, আমি বেটার এই অবস্থা দেখে সেখান থেকে সরে মহিলা সিট আর ড্রাইভারের সিটের মাঝখানে এসে দাঁড়ালাম। ধরে দাঁড়ানোর কোন জায়গা নেই দেখে দাঁড়াতে পারছিলাম না ঠিক মত। তখনই সামনের সিটে বসা এক ভদ্র মহিলা আমার হাত থেকে বই আর ব্যাগ নিয়ে বললেন তুমি ঠিক মত দাঁড়াও আমি তোমার বই দেখছি। বেশ! ঠিক ভাবে দাঁড়ানোর চেষ্টা করলাম, কিন্তু বাসের ব্রেকের ঝাকুনিতে দাঁড়াতে পারছিলামন না। ঠিক তখনই ঐ সিট থেকেই আরেক ভদ্র মহিলা নেলে গেলেন, তো যিনি আমার বই হাতে বসে ছিলেন, উনি তাড়াতড়ি আমার জন্য জায়গাটা দখল করে নিলেন। বসলাম উনার পাশে। কিছুক্ষন যাওয়ার পর..

মহিলাঃ তুমি করেই বললাম তোমাকে। তুমি কই যাচ্ছো?
আমিঃ ইউনিভার্সিটি।

মহিলাঃ কোন ইউনিভার্সিটি?
আমিঃ নর্থ-সাউথ ইউনিভার্সিটি।

মহিলাঃ তা তুমি এই বাসে উঠেছো কেন? এইটা তো বনানী যাবে না।
আমিঃ আমি তো বনানী যাবো না, আমি যাবো বসুন্ধরায়।

মহিলাঃ এই না বললে নর্থ-সাউথে ইউনিভার্সিটি যাবে?
আমিঃ হ্যাঁ।

মহিলাঃ তো?
আমিঃ তো? নর্থ-সাউথ তো এখন বসুন্ধরায়।

মহিলাঃ ও তাই? আমি তো জানতাম না। তা তোমার বাসা কোথায়?
আমিঃ আমার বাসা? আমার বাসা শ্যামলী।

মহিলাঃ ও মা! এত দূরে আসো?
আমিঃ জ্বী। তবে আমার তেমন অসুবিধা হয়না। বসুন্ধরায়-ই আমার বাবা’র বাসা আছে তো, তাই।

মহিলাঃ বাবার বাসা মানে? তাহলে তুমি শ্যামলী’তে কার সাথে থাকো?
আমিঃ কার সাথে? ওহ! আমার হাজব্যান্ডের সাথে।

মহিলাঃ ও আল্লাহ! তুমি ম্যারিড? আমি তো তোমাকে দেখে পিচ্চি একটা মেয়ে ভেবেছিলাম।
আমিঃ (চুপ)

মহিলাঃ আচ্ছা, তুমি কোন ইয়ারে এস.এস.সি পাশ করেছো?
আমিঃ ২০০২।

মহিলাঃ ২০০২? আল্লাহ! আমি এস.এস.সি পাশ করেছি ১৯৮৯ সালে। তাইলে তো আমার ধারনা ভুল না। তুমি তো পিচ্চিই!
আমিঃ আসলে আমার ৯ মাস বয়সী একটা ছেলেও আছে।

মহিলাঃ ও আল্লাহ তাই? কি বলো!
আমিঃ জ্বী!

মহিলাঃ তো এত জলদি বিয়ে করলে যে? আচ্ছা যাইহোক, বিয়ের কয়দিন হলো?
আমিঃ প্রায় আড়াই বছর।

মহিলাঃ বাহ! খুব ভালো, খুব ভালো। আসলে কম বয়সে বিয়ে করলেই ভালো। আর বিয়ের সাথে সাথে বাচ্চা নিয়ে নেয়া আরো ভালো, না হলে পরে যে কত সমস্যা হয়!
আমিঃ (মনে মনে) এই মহিলা এইমাত্র বললো এত জলদি বিয়া করলাম কেন? আর এখনি সুর পাল্টায়া বলে কম বয়সে বিয়ে করাই খুব ভালো? Stare

মহিলাঃ আচ্ছা, শোন তোমার সাথে হয়তো আর কোনদিন দেখা হবে না, তাই তোমাকে একটা অনুরোধ করবো। প্লিজ “না” করো না।
আমিঃ (আমি ভয়ে ভয়ে) জ্বী বলেন।

মহিলাঃ তোমার এই বেবীর বয়স যেদিন এক বছর পূর্ন হবে, ঠিক সেদিন থেকে আরেকটা বেবীর জন্য ট্রাই করা শুরু করবে।
আমিঃ (আমি তো হতভম্ব। কয় কি? Shock )

মহিলাঃ তুমি হয়তো ভাববে আমি এভাবে বলছি কেন। আসলে আমার একটা মেয়ে তো, মেয়েটা যখন একা একা থাকে, তখন খুব কষ্ট হয়। মনেহয় আরেকটা ভাই-বোন থাকলে কত ভালো হতো।
আমিঃ হুমম।

মহিলাঃ তাই বলছিলাম, আমার মত ভুল করো না।
আমিঃ জ্বী, তবে এখনই না। আগে একজনকে বড় করে নেই। আর আমিও তো পড়া-লেখা করছি। চাকরীটাও করার ইচ্ছে আছে। নিজেকে গুছানোর সময় করতে পারছিনা। আগে নিজেকে গুছিয়ে নেই, তারপর।

মহিলাঃ না, না। এই ভুল করো না। নিজেকে গুছাতে গেলে দেখবে অনেক দেরী হয়ে গেছে। তুমি আমার অনুরোধটা রেখো, এই বাচ্চার বয়স এক বছর হলেই….
আমিঃ (বুঝলাম আর কথা বাড়িয়ে লাভ নেই। তাই মহিলার কথা মত রাজী হয়ে গেলাম। ) বললাম, জ্বী আচ্ছা!

তারপর আরো কিছু প্যাচাল চললো। কিছুক্ষন পর তিনি তার গন্তব্যে নেমে গেলেন। আমি ভাবতে থাকলাম,
হায়রে মানুষ! নিজে তো ঠিকই একটা বাচ্চা নিয়াই খেমা দিছে, আর এখন মাইনষেরে রাস্তা ঘাটে সু-পরামর্শ দিয়া বেরায়।
আর এদিকে আমার জামাই এই কাহিনী শুইনা মহা মহা মহা খুশি। বলে, দেখছো, সেদিন আমি তোমারে পৌছাইয়া দিলে এত্ত সুন্দর পরামর্শ কেমনে পাইতা? দেখো, রাস্তা ঘাটে মাইনষে তোমারে কত সুন্দর পরামর্শ দেয়, আর আমি এই কথা কইলেই তুমি খালি আমার সাথে ঝগড়া লাগায়া দেও......
আরে বেটা! নিজে তো বুইড়া হইয়া গেছো, শখ-আহ্লাদ সব শেষ। আর আমারে যে পিচ্চি কালেই মা বানায়া দিলা, সেই খবর কি তোমার আছে? Crazy

পোস্টটি ৫ জন ব্লগার পছন্দ করেছেন

একলব্যের পুনর্জন্ম's picture


খাইছে !! আমিও তো ২০০২ এ এসএসসি..... বিবাহ নিয়া তো চিন্তা ভাবনাও শুরু করি নাই... এই মহিলা আমারে দেখলে কি বলবে !!

মানুষের গায়ে পড়া ভাব দেখলে কথা না বাড়ায়ে আমিও থামানোর চেষ্টা করি, কিন্তু এদের কিছু শুনায়ে ছাড়া উচিত ! Steve

নাজ's picture


আপনারে দেখলে বলবে, "কম বয়সে বিয়ে না করাই ভালো" Tongue

রাসেল আশরাফ's picture


ভাবী ছাইড়া দিলাম কোন কমেন্ট করলাম না।

লেখা পড়ে Rolling On The Floor Rolling On The Floor Rolling On The Floor

নাজ's picture


Crazy

স্বাতী's picture


বড়টা একা থাকে এজন্য ছোট একটা নিয়ে আসলাম ,এখন দুইজনকে সামলাইতে জান ছেড়াবেরা

নাজ's picture


ভয় তো ঐখানেই Sad

সাঈদ's picture


আসলেই তো অনেক পিচ্চি আপনি । Wink

নাজ's picture


Big smile

শওকত মাসুম's picture


বড়দের কথা শুনতে হয় ছোটআপু

১০

নাজ's picture


জ্বী আইচ্ছা বড় ভাইজান, শুনলাম।
ঋহানের যেদিন একবছর হবে ঠিক সেদিন থেকেই.... Crazy

১১

লিজা's picture


আরে বেটা! নিজে তো বুইড়া হইয়া গেছো, শখ-আহ্লাদ সব শেষ। আর আমারে যে পিচ্চি কালেই মা বানায়া দিলা, সেই খবর কি তোমার আছে?
Rolling On The Floor Rolling On The Floor কি বললি রে দোস্ত ।=)) Rolling On The Floor

১২

নাজ's picture


যাহা বলিবো সত্য বলিবো Crazy

১৩

রায়েহাত শুভ's picture


আপ্নে টুটুল্ভাইরে বুইড়া কৈলেন? কৈতে পার্লেন???

১৪

নাজ's picture


উপস! ভুইলা গেছিলাম, কানারে কানা কইতে নাই Wink

১৫

হাসান রায়হান's picture


দিক্কার! টুটুলের মত সেমার্ট, হেন্ডসাম, ইয়াং ছেলেরে বুইড়া বলায় তীব্র দিক্কার জানাইলাম।

১৬

নাজ's picture


হ, দিক্কার দিক্কার Tongue

১৭

লীনা দিলরুবা's picture


হায়রে মানুষ! নিজে তো ঠিকই একটা বাচ্চা নিয়াই খেমা দিছে, আর এখন মাইনষেরে রাস্তা ঘাটে সু-পরামর্শ দিয়া বেরায়।

Big smile

১৮

নাজ's picture


চোখ টিপি

১৯

জ্যোতি's picture


সেদিনও দেখলাম এফ বি তে এক মেয়ে টুটুলরে আগুনের গোল্লা কইলো, আর তুমি বুইড়া কইতাছ?

২০

নাজ's picture


বুড়া'রে বুড়া কমু না তো কি কমু? Yawn

২১

নাজনীন খলিল's picture


না, না। এই ভুল করো না। নিজেকে গুছাতে গেলে দেখবে অনেক দেরী হয়ে গেছে। ------ এই বাচ্চার বয়স এক বছর হলেই…. Laughing out loud Laughing out loud Laughing out loud Laughing out loud Laughing out loud

২২

রাসেল আশরাফ's picture


হ আমাদের ভাইস্তা-ভাতিজী চাই।

২৩

জেবীন's picture


হাহাহাহাহা...    এত্তো দারুন ইমো কই পাইলেন!!... 

২৪

নাজ's picture


অসুবিধা কি? এবি'র সব বুড়া-বুড়ি'র পোলাপান'রে একত্রিত করলে এরকমই হইবো Big smile

২৫

নাজ's picture


Nail Biting

২৬

লীনা ফেরদৌস's picture


আরে বেটা! নিজে তো বুইড়া হইয়া গেছো, শখ-আহ্লাদ সব শেষ। আর আমারে যে পিচ্চি কালেই মা বানায়া দিলা, সেই খবর কি তোমার আছে? -------

নাজ এটা কি করলা? Glasses ঘরের কথা এভাবে পরেরে কইয়া দিলা Shock বালিকা বিবাহের & মা বানানির অপরাধে টুটুল বুইড়ার যাবত জীবন জেল হইতে পারে

টুটুল ইহা একটি নন বেল্যাবেল কেইস।।।।।।।.।। চোখ টিপি

সাবধান !!! >) Davie ভবিষ্যতে এই কাম কইর না

২৭

নাজ's picture


সাবধান !!! ভবিষ্যতে এই কাম কইর না

ভবিষ্যত? Shock

২৮

মেসবাহ য়াযাদ's picture


আরে বেটা! নিজে তো বুইড়া হইয়া গেছো, শখ-আহ্লাদ সব শেষ। আর আমারে যে পিচ্চি কালেই মা বানায়া দিলা, সেই খবর কি তোমার আছে?

কিছু না বলি !!!

২৯

নাজ's picture


বলেন না প্লিজ Crazy

৩০

মেসবাহ য়াযাদ's picture


হিন্দী সিনামার একটা ডায়লগ মনে পড়লো-

মেরা বাপ মাকো মা বানাকার চলা গেয়া...

অর্থটা জানি কী হৈবো ?

৩১

আরিফ জেবতিক's picture


ইয়ে, ঐ মহিলার ফোন নম্বর রাখেন নাই? উনার হয়তো কোনো হেল্প লাগবে, মেসবাহ য়াজাদকে পাঠাতাম।

৩২

নাজ's picture


ফোন নাম্বার? Nail Biting
আমি তো এই ভয়েই ভদ্র মহিলার কথায় রাজী হয়ে গেলাম Silly

৩৩

মীর's picture


আমি অবশ্য এখনো শিশু। তাই অন্য পিচ্চিদের পেরেশানি দেখলে মজা পাই Big smile Big smile
টুটুল ভাই জিন্দাবাদ।

৩৪

রাসেল আশরাফ's picture


বইসা ফিডার খাও। Crazy Crazy Crazy

৩৫

মীর's picture


আপনার বিয়া কৈরা বাচ্চা নেয়ার সময় আইসে পড়সে রাসেল ভাই।

৩৬

রাসেল আশরাফ's picture


বিয়া করতে পারলাম না আর বাচ্চা কাচ্চা!!!!!!! Crazy Crazy

৩৭

মীর's picture


আহা আক্ষেপ কেউ বুঝলো না সান্তনা
নাইলে কি আর সঙ্গে ফিডার নিয়ে ঘুরা লাগে।

৩৮

নাজ's picture


Stare

৩৯

মীর's picture


Smiley

৪০

গৌতম's picture


আমি তো ভাবছিলাম আপনি নর্থ-সাউথের মাস্টার! তাইলে ক্যাম্নে কী! Shock

৪১

নাজ's picture


মাস্টার বলেতো?
আমারে কি বুড়ি পাইছেন নি? Wink

না রে ভাই, আমি এত মেধাবী না। আমি নর্থ-সাউথ ইউনিভার্সিটি তে কেবল এমবিএ করতেছি Sad

৪২

জেবীন's picture


বাসে আসলেই ব্যাপক মজা!... কতো জিনিস থুক্কু জিনিয়াস দেখা যায়!!...

ধিক্কার! এম্নে কইরা টুটুল্ভাইরে ভরা মজলিসে ন্যাক্কারমূলক কথা কইছো বলে!!...

৪৩

নাজ's picture


ধিক্কার! ধিক্কার! ধিক্কার! ধিক্কার! ধিক্কার! ধিক্কার! ধিক্কার! ধিক্কার! ধিক্কার! ধিক্কার! ধিক্কার! ধিক্কার! Crazy

৪৪

তানবীরা's picture


অনেক কিছু মনে পড়ে গেলোরে। শুধু আমিই তাহলে একা এমন খপ্পরে পড়ি না দেখা যাচ্ছে Laughing out loud

৪৫

নাজ's picture


Thinking

৪৬

কামরুল হাসান রাজন's picture


মন খারাপ করা পর্বের পর মন ভালো হওয়া পর্বের জন্য ধইন্যা পাতা

৪৭

নাজ's picture


Welcome

মন্তব্য করুন

(আপনার প্রদান কৃত তথ্য কখনোই প্রকাশ করা হবেনা অথবা অন্য কোন মাধ্যমে শেয়ার করা হবেনা।)
ইমোটিকন
:):D:bigsmile:;):p:O:|:(:~:((8):steve:J):glasses::party::love:
  • Web page addresses and e-mail addresses turn into links automatically.
  • Allowed HTML tags: <a> <em> <strong> <cite> <code> <ul> <ol> <li> <dl> <dt> <dd> <img> <b> <u> <i> <br /> <p> <blockquote>
  • Lines and paragraphs break automatically.
  • Textual smileys will be replaced with graphical ones.

পোস্ট সাজাতে বাড়তি সুবিধাদি - ফর্মেটিং অপশন।

CAPTCHA
This question is for testing whether you are a human visitor and to prevent automated spam submissions.